কোথায় গিয়ে থামবে পেঁয়াজের দাম?

16
ফাইল ছবি

পেঁয়াজের বাজারের অস্থিরতা বেড়েই চলছে। এক দিনের ব্যবধানে কেজিতে পেঁয়াজের দাম ৫০ টাকা বেড়ে ২৫০ টাকা ছুঁয়েছে। বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত নগরীতে এক কেজি পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছিল ২০০ টাকায়,

শুক্রবার রাত পেরিয়ে সকাল হতে না হতেই এক কেজি পেঁয়াজ ২২০ থেকে ২৩০ টাকায় বিক্রি করতে দেখা যায়। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ে পেঁয়াজের দর। বেলা একটা নাগাদ এই দাম ঠেকেছে আড়াইশো টাকায়। যা দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ পেঁয়াজের দাম। আর পাইকারি বাজারে সকালে ১৮০ টাকা থেকে দর বাড়তে বাড়তে দুপুর নাগাদ ঠেকেছে ২২০ টাকায়।

শুক্রবার সকালে নগরীর বিভিন্ন খুচরা বাজারে এমন চিত্র দেখা গেছে। বাজার ঘুরে দেখা যায়, বাজার জুড়ে আলোচনার শীর্ষে পেঁয়াজের দাম। ভোক্তাদের মনে তাই প্রশ্ন, আর কত বাড়বে পেঁয়াজের দাম? কোথায় গিয়ে থামবে পেঁয়াজের দাম?

খুচরা বিক্রেতারা জানান, সরবরাহ কম এবং পাইকারি বাজারে পেঁয়াজের দাম বেশি থাকায় খুচরা বাজারেও পেঁয়াজের দাম বেশি।

দাম বৃদ্ধির হিড়িক দেখা গেছে অনলাইনেও। দেশের অনলাইন ভিত্তিক কিছু প্রতিষ্ঠান গতকাল ২০০ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি করলেও সকাল হতেই দাম বেড়েছে কেজি প্রতি দশ টাকা।

সরকারের পাশাপাশি পাইকারি ব্যবসায়ীদের দুষছেন সাধারণ মানুষ। ইউনূস আলী নামের এক ক্রেতা বলেন, ‘গতকাল দেখলাম দুই শ টাকা। আড়াই শ গ্রাম নিয়ে গেছিলাম। ভাবলাম আজ যদি দাম একটু কমে। আজ দেখি আড়াই শ। কাল নিশ্চয়ই তিন শ হবে!’

সংশ্লিষ্টদের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘বাজার নিয়ন্ত্রণে যারা আছেন, তাদের এ বিষয়ে মাথা ব্যথা নেই। যদি থাকতে তাহলে কারও গোডাউনে পেঁয়াজ থাকত না। দামও তো বেশি হতো না।’

চট্টগ্রামের খুচরা বাজারে এখন মানভেদে প্রতি কেজি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ২৪০ থেকে ২৫০ টাকায়।

সরকারি নানা উদ্যোগেও কমছে না নিত্যপ্রয়োজনীয় এই পণ্যটির দাম। এতে ভোগান্তিতে পড়েছে স্বল্প আয়ের মানুষ।

চকবাজার এবং কাজির দেউড়ি কাচাবাজারে গিয়ে দেখা যায়, দেশি পেঁয়াজ প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৪০ থেকে ২৫০ টাকায়। এই বাজারের একটি মুদি দোকানের সামনে প্রায় আধা ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থেকে অন্তত পাঁচজন ক্রেতাকে পেঁয়াজের দাম শুনে ভ্রু কুচকাতে দেখা যায়। অন্য দুটি দোকানে গিয়েও একই দাম দেখেন তারা। এক পর্যায়ে পেঁয়াজ ছাড়া কাচাবাজারের অন্যান্য প্রয়োজনীয় পণ্য কিনেই বাড়ি ফেরেন এসব ক্রেতা। এর মধ্যে এই দোকান থেকে মাত্র একজনকে আধা কেজি পেঁয়াজ কিনতে দেখা যায়।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী গতবছর থেকে এখন পর্যন্ত যে পরিমাণ পেঁয়াজ দেশে আছে তা চাহিদার চেয়ে অনেক বেশি। তাহলে এভাবে লাগামহীনভাবে পেঁয়াজের দাম বাড়ছে কেন?

মন্তব্য করুন

comments