ভার্চুয়াল আদালতে ৮ দিনে ১৮,৫৮৫ আসামির জামিন

করোনাভাইরাসের কারণে চালু হওয়া ভার্চুয়াল আদালতে সারা দেশে গত আট দিনে ১৮ হাজার ৫৮৫ জনের জামিন হয়েছে। আবেদন নিষ্পত্তি হয়েছে সর্বমোট ২৮ হাজার ৩৪৯টি।

গতকাল বুধবার (২০ মে) সুপ্রিম কোর্টের মুখপাত্র মো. সাইফুর রহমান জানান, বুধবার সারাদেশে ভার্চুয়াল আদালতে চার হাজার ৪৮৪ জনের জামিন হয়েছে। তিনি জানান, ঈদের আগে আজ বুধবার ছিল সর্বশেষ কর্মদিবস। গত আট দিনের ভার্চুয়াল আদালতে মোট ১৮ হাজার ৫৮৫ জনের জামিন হয়েছে। আবেদন নিষ্পত্তি হয়েছে সর্বমোট ২৮ হাজার ৩৪৯টি।

এর আগে গতকাল ১৯ মে চার হাজার ৪২ জন, ১৮ মে তিন হাজার ৬৩৩ জন এবং গত ১৭ মে তিন হাজার ৪৪৭ জন আসামিকে জামিন দেন দেশের বিভিন্ন জেলার ভার্চুয়াল আদালত।

করোনাভাইরাস মহামারি রোধ করতে আদালতের কার্যক্রম ২৬ মার্চ থেকে স্থগিত ছিল। দীর্ঘদিন ধরে আদালত বন্ধ থাকায় অনেক আইনজীবী ভার্চুয়াল আদালত পরিচালনার জন্য সোচ্চার হন। পরবর্তীতে সুপ্রিম কোর্টের উভয় বিভাগের বিচারপতিদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত ‘ফুল কোর্ট সভা’ থেকে ভার্চুয়াল আদালত পরিচালনা সংক্রান্ত অধ্যাদেশ জারির জন্য রাষ্ট্রপতিকে অনুরোধ জানানোর সিদ্ধান্ত হয়।

আদালতকে ভিডিও কনফারেন্স এবং অন্যান্য ডিজিটাল সুবিধার মাধ্যমে বিচারের কার্যক্রম পরিচালনার অনুমতি দেওয়ার জন্য ওইদিন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ একটি অধ্যাদেশ জারি করেন। পরে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয় একটি গেজেট প্রকাশ করে জানায় যে, এটি তাৎক্ষণিকভাবে কার্যকর হবে।

গত ৭ মে মন্ত্রিসভা তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে ভিডিও কনফারেন্স ও অন্যান্য ডিজিটাল মাধ্যমে আদালতের বিচার প্রক্রিয়া পরিচালনার জন্য অধ্যাদেশটির খসড়া অনুমোদন করে।

এরপর গত ১০ মে নিম্ন আদালতের ভার্চুয়াল কোর্টে শুধু জামিন শুনানি করতে নির্দেশ দেন সুপ্রিমকোর্ট প্রশাসন। এর মাধ্যমে গত ১১ মে দেশের ইতিহাসে প্রথম ভার্চুয়াল আদালতের কার্যক্রম শুরু হয়।

মন্তব্য করুন

comments