বান্দরবানে লকডাউনের দুদিনের মাথায় আবারো পোশাক কারখানা চালু

বান্দরবানের বান্দরবানের একমাত্র রপ্তানিমুখী পোশাক কারখানা লুম্বিনী লিমিটেডে করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর কারখানাটি লকডাউন ঘোষণা করে জেলা প্রশাসন। কিন্তু মাত্র দুই দিনের মাথায় কারখানাটি আবারো চালু করা হয়েছে। এ ঘটনায় জেলা শহরে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

গত সোমবার (২৫ মে) বান্দরবানের মেঘলায় অবস্থিত লুম্বিনী লিমিটেড নামে একটি সোয়েটার কারখানার এক কর্মী করোনা পজিটিভ হওয়ায় সেদিন রাতেই জেলা প্রশাসন কারখানাটি ৮ জুন পর্যন্ত লকডাউন ঘোষণা করে। ঐদিন রাতে তাকে বান্দরবান সদর হাসপাতালের আইসোলেশনে ভর্তি করা হয়।

এরপরই কারখানাটি লকডাউন করে সেখানে কর্মরত ৫৪১ জন শ্রমিককে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকারও নির্দেশ দেয়া হয়েছিলো। এই ঘটনার দুই দিনের মাথায় কারখানাটি আবার চালু করায় এলাকার জনমনে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

বিষয়টি জানতে চাইলে লুম্বিনী লিমিটেডের ব্যবস্থাপক (প্রশাসন ও জনসংযোগ) মফিজুল ইসলাম মামুন বলেন, ‘বান্দরবান জেলা প্রশাসনের অনুমতি নিয়ে সরকারি স্বাস্থ্যবিধি মেনে কারখানা চালু হয়েছে। লুম্বিনী লিমিটেড একটি শতভাগ রফতানিমুখী পোশাক কারখানা। চার থেকে পাঁচটি ধাপে এখানকার কর্মীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা দেওয়া হয়। এতে আতঙ্কিত হবার কোনও কারণ নেই।’

ত‌বে স্থানীয়দের দাবি, এতো সুরক্ষার ম‌ধ্যেও যে‌হেতু ক‌রোনা শনাক্ত হ‌য়ে‌ছে, ত‌বে আগামী‌তেও যে তা‌দের ম‌ধ্যে ক‌রোনা ছড়া‌বে না তার কোনও নিশ্চয়তা নেই।

এ প্রসঙ্গে বান্দরবানের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো. শামীম হোসেন জানান, ‘সরকারি নিদের্শনা মেনে আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে আসা কর্মীদের আলাদা করে নমুনা পরীক্ষা করে কোয়ারেন্টাইন করার নিদের্শনা দেয়া হয়েছে লুম্বিনীকে। এছাড়াও স্বাস্থ্যবিধি শতভাগ মানার শর্তেই কারখানাটি আবারো চালুর অনুমতি দেয়া হয়েছে। আমরা কারখানাটি পর্যবেক্ষণে রাখবো।’ 

করোনা শনাক্তের পরও ঝুঁকির মধ্যে গামের্ন্টস কারখানা চালু কতটা নিরাপদ জানতে চাইলে সিভিল সার্জন ডা. অংসুই প্রু বলেন, ‘কারখানা চালু হলে ঝুঁকি বাড়তে পারে। উচ্চ সর্তকাবস্থা না মানলে করোনা এই কারখানার মাধ্যমেই দ্রুত ছড়াতে পারে। তবে এসব প্রশাসনের বিষয়। প্রশাসন চাইলে খুলে দিতে পারে।’

বান্দরবানে এ পর্যন্ত দুই পুলিশ ও এক চিকিৎসকসহ মোট ১৯ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বর্তমানে ২৪৯ জন হোম কোয়ারেন্টিনে ও ২৮ জন প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন।  

মন্তব্য করুন

comments