চমেকে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষ, আহত ১৫

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। আজ রবিবার (১২ জুলাই) সকালে সাড়ে ১০ দিকে এ ঘটনা ঘটে। এতে উভয় গ্রুপের ১৫ জন আহত হয়েছে বলে দাবি তাদের।

এছাড়া, ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মারামারি থামাতে গিয়ে আহত হয়েছেন চার পুলিশ সদস্য।

দু’গ্রুপের মধ্যে একটি পক্ষ চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের অনুসারী অপরপক্ষ স্থানীয় সংসদ সদস্য শিক্ষা উপ-মন্ত্রী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান নওফেলের অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত।

জানা যায়, শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল রবিবার সকালে চমেক হাসপাতালে যান। গিয়েই তিনি চমেক হাসপাতালের পরিচালকের সঙ্গে দেখা করেন। এরপর শিক্ষা উপমন্ত্রী চলে যাওয়ার সময় চমেক ছাত্রলীগের দুই গ্রুপ পাল্টাপাল্টি স্লোগান দেয়। এক পক্ষ নওফেলের নামে, আরেক পক্ষ মেয়র আ জ ম নাছিরের নামে।

এক পর্যায়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া শুরু হয়। এতে উভয় গ্রুপের ১৫জন আহত হন। 

পাঁচলাইশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কাশেম ভুঁইয়া বলেন, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে মারামারি হয়েছে। মারামারি থামাতে গিয়ে আমাদের চার পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

comments