চট্টগ্রামে করোনা রোগীর মৃত্যু, প্লাজমা দিয়েও বাঁচানো গেল না

চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে চন্দন দত্ত নামে করোনা আক্রান্ত এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৪ বছর। মৃত ব্যক্তি এ কে খান জুট মিলের সাবেক জিএম।

শনিবার (৩০ মে) বেলা ১১ টায় হাসপাতালের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন বলে নিশ্চিত করেছেন জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডাঃ আব্দুর রব। জীবন বাঁচাতে মৃত্যুর আগে প্লাজমা থেরাপিও দেওয়া হয় এই রোগীকে।

ডাঃ আব্দুর রব বলেন, আইসিইউতে চিকিৎসাধীন ওই রোগীর মৃত্যু হয়েছে। তিনি করোনার পাশাপাশি ডায়াবেটিসে ভুগছিলেন। গতকাল রোগীকে  প্লাজমা দেওয়ার পাশাপাশি আইসিইউ সাপোর্টে রাখা হয়। গত ২৪ মে হাসপাতালে ভর্তি হন নগরের কাট্টলী এলাকার এই বাসিন্দা।

এর আগে গতকাল শুক্রবার সকালে ওই রোগীর জন্য প্লাজমা চেয়ে নিজের ফেসবুকে পোস্ট দেন কোতোয়ালী থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীন। ওসির স্ট্যাটাসটি দেখে প্লাজমা দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেন সাতকানিয়া কলেজের শিক্ষার্থী শাহরিয়ার রোমানসহ ১০ জন; যারা সম্প্রতি করোনা থেকে মুক্ত হয়েছেন।

কোতোয়ালী থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীন বলেন, গতকাল শুক্রবার রোমানের ডোনেট করা প্লাজমা ওই করোনা রোগীর শরীরে দেয়া হয়েছিল। এরপরও আজ দুঃসংবাদটি এসেছে।

মন্তব্য করুন

comments