X

‘অপ্রয়োজনে সিজারিয়ান ডেলিভারি করালেই ব্যবস্থা’

অপ্রয়োজনে সিজারিয়ান ডেলিভারি (অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে শিশুর জন্ম) করালে হাসপাতালের বিরুদ্ধে সরকার ব্যবস্থা নেবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ।

তিনি বলেন, সিজারিয়ান ডেলিভারির ক্ষেত্রে হাসপাতালগুলোকে একটি ফরম পূরণ করে আমাদেরকে জানাতে হবে।

বৃহস্পতিবার (৫ এপ্রিল) সচিবালয়ে বিশ্বস্বাস্থ্য দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ। এ সময় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, চিকিৎসা বিজ্ঞানে সিজারের সংখ্যা সর্বোচ্চ ১৫ শতাংশ পর্যন্ত স্বাভাবিক বলে মনে করা হয়৷ কিন্তু বাংলাদেশে এই সংখ্যা ৩৫ শতাংশ পেরিয়ে গেছে।|

এদিকে বাংলাদেশ ম্যাটারনাল মরটালিটি অ্যান্ড হেলথ কেয়ার সার্ভের (বিএমএমএস) প্রাথমিক ফলাফল অনুযায়ী বাংলাদেশে মাতৃমৃত্যুর হার বেড়েছে। সমীক্ষা অনুযায়ী, ২০১৬ সালে প্রতি এক লাখ জীবন্ত শিশু জন্মের ক্ষেত্রে মৃত্যু হয়েছে ১৯৬ জন মায়ের। ২০১০ সালে এই সংখ্যা ছিল ১৯৪।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মহাপরিচালক বলেন, মাতৃমৃত্যুর হার নিয়ে আমাদের প্রশ্ন আছে। আমরা ওই রিপোর্টের সাথে এখনও একমত হতে পারিনি। কারণ আমাদের যে রুটিন হেলথ ইনফরমেশন ডাটা যেখানে থেকে আসে আমরা সেটাকে বিশ্বাস করতে পারি। আমাদের ডাটা অনুসারে এটা ১৬৮ থেকে ১৭০ এর মতো হতে পারে। এটা নিয়ে কাজ করছি, দ্বিতীয়ভাবে আবার দেখছি, এটা আসলে কতটুকু সঠিক। কাজেই আমরা স্বীকার করতে রাজি নই মাতৃমৃত্যুর হার বাংলাদেশে বেড়েছে।

মন্তব্য করুন

comments