X

দম্পতিসহ আরো চারজন রোহিঙ্গার লাশ উদ্ধার সীমান্তে

কক্সবাজার ও বান্দরবানের সীমান্ত এলাকা থেকে রাখাইন রাজ্য থেকে পালিয়ে আসার সময় নিহত আরও চারজন রোহিঙ্গার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এদের মধ্যে রয়েছে এক দম্পতি । এ নিয়ে গত তিনদিনে ৫৪ জন রোহিঙ্গার মৃতদেহ উদ্ধার হলো।
শনিবার (২ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে টেকনাফ উপজেলার নাফ নদীর হোয়াইক্যং পয়েন্ট থেকে পুলিশ এবং বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম সীমান্ত থেকে বিজিবি লাশগুলো উদ্ধার করে।

বিজিবির কক্সবাজার ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মনজুরুল হাসান খান বলেন, শনিবার গভীর রাতে বান্দরবানের ঘুমধুম ইউনিয়নের জলপাইতলী পয়েন্টে শূন্যরেখার বাংলাদেশের অভ্যন্তরে দুটি গুলিবিদ্ধ লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা বিজিবিকে খবর দেয়। পরে বিজিবি গিয়ে তা উদ্ধার করে।

উদ্ধারকৃত লাশগুলো সীমান্তের জলপাইতলীতে রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি।

ওই এলাকা থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা আবুল হোসেন জানিয়েছেন, মৃতরা মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের আকিয়াব জেলার মংডু থানার ঢেঁকিবুনিয়া এলাকার মো.জাফরুল্লাহ ও তার স্ত্রী আয়েশা বেগম।

লাশগুলো স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করা হবে।

এর আগে শনিবার সকালে নাফ নদীর টেকনাফের শাহপরীরদ্বীপ পয়েন্ট থেকে একজন ও রাতে হোয়াইক্যং পয়েন্ট দুইজন, বুধবার চারজন, বৃহস্পতিবার ১৯ জন এবং শুক্রবার ২৬ জন রোহিঙ্গার লাশ উদ্ধার করা হয়।

মন্তব্য করুন

comments