ইয়াবা পাচার মামলায় ১৯ জনের ১০ বছরের জেল

46
শেয়ার

মাছ ধরার ট্রলারে নেশার ইয়াবা ট্যাবলেট পাচার করতে গিয়ে হাতে নাতে ধরা পড়ে ১৯ জন। বেআইনি নেশার বস্তু পাচার করার অপরাধে কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা আদালত ধৃতদের ১০ বছরের কারাবাসের নির্দেশ দেয়। সোমবার আদালতে ধৃতদের উপস্থিতিতে বিচারক মহম্মদ ওসমান গণি এই রায় শোনান।

সূত্রের খবর, ২০১৬ সালের ২৫ ফেব্রুয়ারিতে টেকনাফের সেন্ট মার্টিনের উপকূলে গোপন সূত্রের খবর পেয়ে কোস্টগার্ডের একটি দল দুটি মাছ ধরার ট্রলারসহ ১৯ জনকে গ্রেপ্তার করে। আটক করা ট্রলারে তল্লাশি চালিয়ে কোস্টগার্ড ৪ লক্ষ ইয়াবা বড়ি উদ্ধার করে।

সোমবার বিচারকের রায়দানের পর সরকারী আইনজীবী গণমাধ্যমকে জানান, কক্সবাজার আদালতে একটি মামলায় একসঙ্গে ১৯ জনকে ১০ বছরের করে কারাদণ্ড এবং পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

অনাদায়ে আরও তিন মাসের সশ্রম কারাদণ্ডের নির্দেশ দেন আদালত।

বেআইনি ভাবে নেশার বস্তু পাচার করার অপরাধে এই ধরনের শাস্তি দেশের মধ্যে নজিবিহীন বলে জানান সরকারী আইনজীবী। একই সঙ্গে রায়ের মাধ্যমে আদালত আরও একটি বার্তা দিল ইয়াবা পাচার ও ব্যবসার সঙ্গে জড়িত থাকলে কেউ পার পাবে না। অপরাধীদের শাস্তি পেতেই হবে।

আদালতের এই রায়কে স্বাগত জানিয়েছেন দেশের সব মহল।

মন্তব্য করুন

comments