দুদকের হটলাইনে ব্যাপক সাড়া; এক সপ্তাহে ৭৫ হাজার কল

71
শেয়ার

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) হটলাইন নম্বর ১০৬ এ প্রথম এক সপ্তাহেই প্রায় ৭৫ হাজার মানুষ ফোন করে নানা অভিযোগ করেছেন।

প্রতিদিন গড়ে সাড়ে ১০ হাজার হাজার মানুষ এটিতে ফোন করে নানা অভিযোগ করছেন। হটলাইন চালু হওয়ার পর থেকেই প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ এটিতে ফোন করে নানা অভিযোগ করছেন বলে জানিয়েছেন কমিশনের মুখপাত্র প্রণব ভট্টাচার্য।

এছাড়া জানা গেছে, গত শুক্র ও শনিবার ছুটির দিনেও কল এসেছে। কল রেকর্ডের তথ্য অনুযায়ী ছুটির দুদিনে ৩০ হাজারের বেশি কল এসেছিল। তাই ছুটির দিনেও দুদকের হটলাইন নম্বর চালু রাখতে উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

বেশির ভাগ মানুষ যেসব অভিযোগ করছেন, তার একটি বড় অংশ দুদকের এখতিয়ারের বাইরে। অনেকে তাঁদের পারিবারিক সমস্যা নিয়েও কমিশনের কাছে অভিযোগ করছেন।

প্রণব ভট্টাচার্য বলেন, ‘আমাদের কাছে এ পর্যন্ত প্রায় ৭৫ হাজার ফোনকল এসেছে। নানা ধরনের কল আসছে। যেমন কিছু লোক তাঁদের ব্যক্তিগত সমস্যা নিয়ে অভিযোগ করছেন। তবে দুর্নীতিবিষয়ক অভিযোগের সংখ্যা তেমন বেশি নয়। লোকজন দুর্নীতি দমন কমিশন সম্পর্কে জানতে চাইছে। অনেকে কীভাবে অভিযোগ করতে হয়, তা জানতে চাইছে।’

দুর্নীতি দমন কমিশন আশা করছে তাদের চালু করা হটলাইন লোকজনকে ঘুষ দেওয়া থেকে বিরত রাখতে সাহায্য করবে। কমিশন এরই মধ্যে তিনটি কমিটি গঠন করেছে। তারা ঘটনাস্থলে ছুটে গিয়ে যারা ঘুষ চাইবে, তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবে।

মানুষের দুর্নীতি বিরোধী এ মনভাবকে ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন সংশ্লিষ্টরা। এ জন্য ছুটির দিনসহ অন্যান্য দিনে নিজেদের সক্ষমতা বাড়ানোর চিন্তা করছে দুদক।

প্রসঙ্গত, টেলিফোন বা যে কোনো নম্বর থেকে হটলাইনে কল করা যাবে। এ জন্য কোনো টাকা কাটবে না। এতে যেকোনো ব্যক্তি দুর্নীতির ঘটনা ঘটার আগে ও পরে অভিযোগ করতে পারবেন।

মন্তব্য করুন

comments