কক্সবাজারে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাজতির মৃত্যু

40
শেয়ার

গতকাল সোমবার বেলা দুইটার দিকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে কক্সবাজার জেলা কারাগারের মো. রায়হান (২৯) নামে এক হাজতি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছে।

কক্সবাজার জেলা কারাগারের জেলা সুপার বজলুর রশিদ আকন্দ জানান, হাজতি মো. রায়হান সোমবার সকাল ১২টার দিকে স্ট্রোক করলে তাকে চিকিৎসার জন্য দ্রুত কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। হাসপাতালে ভর্তির পর বেলা ২টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

মো. রায়হান কক্সবাজার শহরের নূরপাড়ার বাসিন্দা মৃত মোহাম্মদ আমিন হোসেনের পুত্র।দুটি চুরি মামলায় গত মার্চে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠায় পুলিশ।

এ বিষয়ে কক্সবাজার সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার শাহীন আবদুর রহমান জানান, সোমবার বেলা দেড়টার দিকে রায়হানকে মুমূর্ষ অবস্থায় আনা হয়। আধা-ঘন্টা পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়েছে।

হাসপাতালের আরএমও শাহীন আরো বলেন, রায়হানের শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন দেখা যায়নি। তারপরও ময়নাতদন্ত ও সুরতহাল প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে।

রায়হান স্ট্রোক করে মারা গেছে বলে কারা কর্তৃপক্ষ জানালেও পরিবারের অভিযোগ তাকে নির্যাতন করে মেরে ফেলা হয়েছে।

মৃত রায়হানের ছোট ভাই আরমান বলেন, গত রোববারও আমি ও আমার মা কারাগারে তাকে দেখতে গিয়েছিলাম। তখন তাকে সম্পূর্ণ সুস্থ অবস্থায় দেখি। তার সাথে আমরা দীর্ঘক্ষণ কথাও বলি। এরপর তাকে কারাগারের ভিতর নির্যাতন করা হয়েছে। নির্যাতনে তার মৃত্যু হয়েছে।

জেল সুপার বজলুর রশিদ আকন্দ বলেন, ‘গত মার্চে একটি চুরির মামলায় মো. রায়হানকে জেলে আনা হয়। তারপর থেকে সে স্বাভাবিক অবস্থায় ছিলো। তাকে নির্যাতনের প্রশ্নই আসে না। সে স্ট্রোক করেই মারা গেছে।’

নির্যাতন করার বিষয়টিকে সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন দাবি করে কারা তত্ত্বাবধায়ক বলেন, “রায়হানের পরিবারের পক্ষ থেকে নির্যাতনের অভিযোগ তোলা হলেও মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে ডাক্তারি প্রতিবেদন পেলে প্রকৃত সত্য প্রকাশ পাবে।’

নিহতের পরিবার এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবি করেন।

মন্তব্য করুন

comments