সালমান শাহকে হত্যা করা হয়েছে দাবি করে ভিডিও বার্তা (ভিডিও)

64
শেয়ার

জনপ্রিয় চলচ্চিত্র অভিনেতা প্রয়াত সালমান শাহকে হত্যা করা হয়েছে দাবি করে রাবেয়া সুলতানা রুবি নামে আমেরিকা প্রবাসী এক বাংলাদেশি অনলাইনে একটি ভিডিও বার্তা ছেড়েছেন।

ভিডিওতে তিনি দাবি করেন, সালমান শাহকে খুনে জড়িত ছিলেন তার স্বামী। চীনাদেরকে দিয়ে এই খুন করানো হয়। এতে জড়িত ছিলেন সালমান শাহের স্ত্রী সামিরার পরিবারও।

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই ভিডিওটি ভাইরাল হয়। এতে তিনি সালমান শাহের মা নীলা চৌধুরীকে উদ্দেশ্য করে বলেন, এই খুনের বিষয়ে তিনি বিস্তারিত জানেন। বিষয়টি যেভাবেই হোক, আবার যেন তদন্তের ব্যবস্থা করা হয়। তিনি যেভাবেই পারেন আদালতে সাক্ষী দেবেন।

সালমান শাহ ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর মারা যান। তিনি আত্মহত্যা করেছেন বলে পুলিশকে জানান তার স্ত্রী সামিরা। কিন্তু সালমান শাহের পরিবার একে হত্যা বলে আসছিল।তবে পুলিশ দুই দফা ময়নাতদন্ত করে একে আত্মহত্যাই বলেছিল।

বাংলা চলচ্চিত্রের সবচেয়ে সফল নায়ক সালমানের মৃত্যুর পর তার অগুণতি ভক্তকূল একে আত্মহত্যা বলে মেনে নিতে নারাজ ছিল। প্রিয় অভিনেতার মৃত্যুতে বেশ কয়েকজন তরুণী আত্মহত্যাও করেছিলেন।

তার মৃত্যুর ২১ বছর পর রুবি তার ভিডিওতে বারবার বলেন, ‘সালমান শাহ আত্মহত্যা করেনি, তাকে খুন করা হয়েছে।’ সালমান শাহের মাকে আকুতি জানিয়ে তিনি বলেন, ‘প্লিজ কিছু একটা করেন’।

ভিডিওতে তিনি বারবার বলেন, সালমান শাহ আত্মহত্যা করেনি, সালমান শাহ খুন হয়েছে। তার স্বামী এটা করিয়েছে তার ভাইকে দিয়ে এবং এটাতে সামিরার পরিবারও তার স্বামীর সাথে শামিল ছিলো।তারা সেটা কিছু চাইনিজ মানুষকে দিয়ে করিয়েছে বলে ভিডিওতে উল্লেখ করেন তিনি।

নিজের নাম প্রকাশ করে ভিডিওতে বলা হয়, ‘আমি রুবি, এখানে ভেগে আসছি, আমি ভেগে আসছি, এই কেস যেন না শেষ হয়। আমি যেভাবে পারি, ঠিকমত যেন আমি সাক্ষী দিতে পারি। আপনারা আমার জন্য দোয়া করেন।’

তাকেও খুন করার চেষ্টা করা হচ্ছে জানিয়ে রুবি বলেন, ‘আমাকেও খুন করার চেষ্টা করা হচ্ছে, দয়া করে আমার জন্য দোয়া করেন। আমি ভাল নেই, আমি কী করবো আমি জানি না, এতটুক জানি যে সালমান শাহ ইমন আত্মহত্যা করেনি।ইমনকে সামিরা, আমার স্বামী ও সামিরার সমস্ত পরিবারের সবাই মিলে খুন করেছে। প্লিজ দয়া করে কিছু করেন।’

ভিডিওটি নীচে দেখুন

মন্তব্য করুন

comments