অবশেষে অনশন ভাঙলেন দিয়াজের মা

106
শেয়ার

পুলিশের আশ্বাসে অবশেষে অনশন ভেঙেছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা দিয়াজ ইরফান চৌধুরীর মা জাহেদা আমিন চৌধুরী।

শনিবার রাতে নগরীর বেসরকারি হাসপাতাল সার্জিস্কোপে চিকিৎসাধীন জাহেদা আমিনকে দেখতে গিয়ে পানি পান করিয়ে অনশন ভাঙান চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপার নুরে আলম মিনা।শিগগিরই দিয়াজ হত্যার আসামীদের গ্রেফতার করা হবে, এমন আশ্বাসে অনশন তিনি।

এর আগে অনশনকালে জাহেদা আমিন চৌধুরী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে সার্জিস্কোপ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

জানা গেছে, জাহেদা আমিন চৌধুরীকে দেখতে ও তাঁর অনশন ভাঙাতে শনিবার রাতে হাসপাতালে যান চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপার নূরে আলম মিনা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুহাম্মদ রেজাউল মাসুদ ও মশিউদ্দোলাহ রেজা, চট্টগ্রাম বারের সভাপতি রতন কুমার রায়, সাধারণ সম্পাদক আবু হানিফ, সদস্য ইব্রাহীম হোসেন চৌধুরী, সাবেক সভাপতি মুজিবুল হক, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ইফতেখার সাইমুম প্রমুখ।

ছেলে হত্যার বিচারের দাবিতে গত সোমবার সকাল থেকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের বঙ্গবন্ধু চত্বরে আমরণ অনশনে নামেন দিয়াজের মা জাহেদা। সেদিন অসুস্থ হয়ে পড়লে প্রথমে হাসপাতালে এবং পরে চট্টগ্রাম শহরের বাসায় নিয়ে যাওয়া হয় তাঁকে। অনশনের পঞ্চম দিন দুপুরে চট্টগ্রাম শহরের নিজ বাসায় অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করান পরিবারের সদস্যরা।

এ প্রসঙ্গে দিয়াজের বড় বোন জুবাঈদা ছারওয়ার চৌধুরী নিপা রোববার জানান, শনিবার রাতে মাকে দেখতে হাসপাতালে আসেন পুলিশ সুপারসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। পুলিশ সুপার দিয়াজের খুনিদের দ্রুততম সময়ে গ্রেপ্তারে সর্বাত্মক সহযোগিতা দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে মাকে পানি পান করান। এখনও অসুস্থ থাকায় হাসপাতালেই ভর্তি আছেন মা। তাকে এখন রাইলস টিউব দিয়ে তরল খাবার দেওয়া হচ্ছে।

গত বছরের ২০ নভেম্বর রাতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের দক্ষিণ ক্যাম্পাসে নিজের বাসা থেকে উদ্ধার করা হয় ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সম্পাদক দিয়াজের ঝুলন্ত লাশ। এ ঘটনায় দিয়াজের মা বাদী হয়ে গত বছরের ২৪ নভেম্বর আদালতে হত্যা মামলা করেন।

মন্তব্য করুন

comments